যুবলীগ সংবাদ :

যুবজাগরণ পাঠাগার ও বিক্রয়কেন্দ্র উদ্বোধন বঙ্গমাতাকে নিয়ে যুবলীগের স্মারকগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে রুখে দাড়াতে হবে : যুবলীগ চেয়ারম্যান জঙ্গিমুক্ত দেশ গড়তে যুবলীগের শপথ রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস পালিত শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে যুবলীগের সপ্তাহব্যাপী কর্মসূচি স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে যুবলীগের শ্রদ্ধাঞ্জলী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষ্যে যুবলীগের শ্রদ্ধাঞ্জলী বইমেলায় যুবলীগের নান্দনিক আয়োজন যুবলীগ চেয়ারম্যান সম্পাদিত বইয়ের মোড়ক উন্মোচন আওয়ামী যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান শেখ ফজলুল হক মনির ৭৭ তম জন্মদিন পালিত। পৌর নির্বাচনী প্রচারণায় যুবলীগের কমিটি গঠন মোমবাতি জ্বালিয়ে শহীদদের প্রতি যুবলীগের শ্রদ্ধা মালয়েশিয়ায় যুবলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার অগ্রযাত্রার মিছিলে তারুণ্যের প্রেরণা আর সাহসের দিন শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস---যুবলীগ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ওমর ফারুক চৌধুরী
যুবলীগ চেয়ারম্যান মোঃ ওমর ফারুক চৌধুরীর ধানমন্ডিস্থ ব্যক্তিগত কার্যালয়ে বোমা হামলার প্রতিবাদে ঢাকা মহানগর উত্
10/29/2013 6:34 PM

সংবিধানের বাইরে যাওয়ার সুযোগ নেই : ড. হাছান মাহমুদ

খালেদা জিয়া যুদ্ধাপরাধীদের ইশারার পুতুল : ওমর ফারুক চৌধুরী


আসন্ন সংসদ নির্বাচন নিয়ে সংবিধানের বাইরে যাওয়ার কোনও সুযোগ নেই বলে মন্তব্য করেছেন বন ও পরিবেশমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। গতকাল মিরপুর ১নং গোল চত্বরে মহানগর উত্তর আয়োজিত প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এ মন্তব্য করেন। তিনি আরও বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অধীনেই অন্তর্বর্তীকালীন সরকার ও জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। মন্ত্রী বিরোধীদলীয় নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার উদ্দেশে বলেন, হরতাল দিয়ে মানুষ মারবেন না, মানুষকে কষ্ট দিবেন না। প্রধানমন্ত্রীর আহবানে সাড়া দিয়ে সংলাপে অংশ নিন। নির্বাচনে অংশগ্রহণ করুন।

বেগম খালেদা জিয়া এখন যুদ্ধাপরাধীদের ইশারার পুতুল উল্লেখ করে যুবলীগ চেয়্যারম্যান মোহাম্মদ ওমর ফারুক চৌধুরী বলেন, জামায়াতের নেতৃত্বাধীন ১৮ দলের হরতালের দ্বিতীয় দিন আজ। এখন জামায়াতই হলো ১৮ দলের মূল দল। কারণ, জামায়াত ছাড়া বেগম জিয়া চলতে পারেন না। বেগম জিয়া এখন জামায়াতের নেত্রী। জামায়াতের নির্দেশে তিনি ২৫ অক্টোবর হরতালের ঘোষণা দিলেন। কিন্তু জামায়াতের পরামর্শ ছাড়া তিনি হরতাল প্রত্যাহার করতে পারলেন না। এই হলো বেগম জিয়ার রাজনীতি। একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন নয়, বেগম জিয়ার মূল লক্ষ্য যুদ্ধাপরাধীদের বাঁচানো। এজন্য সারা দেশে তার নেতৃত্বে জামায়াত-শিবির সন্ত্রাস, নৈরাজ্য, চোরাগোপ্তা হামলা, মানুষ হত্যা করছে। এটা কী গণতন্ত্রে বিশ্বাসী কোনও মানুষের কাজ? প্রশ্ন রাখেন তিনি।

হরতাল প্রত্যাহারে বেগম খালেদা জিয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অনুরোধ উপেক্ষা করারও কঠোর সমালোচনা করেন তিনি। 

ওমর ফারুক চৌধুরী বলেন, খালেদা জিয়া ২৫ তারিখে বললেন শনিবারের মধ্যে নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে আলোচনার সূত্রপাত না করা হলে রোববার থেকে হরতাল। শনিবারই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাকে টেলিফোন করলেন। আলোচনার আমন্ত্রণ জানালেন। অনুরোধ করলেন হরতাল প্রত্যাহার করতে। কিন্তু বেগম জিয়া করলেন না। কারণ, তিনি শান্তি-সমঝোতা-গণতন্ত্র চান না। কার জন্য এই হরতাল? মানুষ হত্যার জন্য, সম্পদ ধ্বংসের জন্য? নৈরাজ্য সৃষ্টির জন্য? বেগম জিয়া চান বাংলাদেশকে আরেকটি পাকিস্তান ও আফগানিস্তান বানাতে। কিন্তু বেগম জিয়া ইতিহাস থেকে শিক্ষা নেননি। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট তার স্বামী যুদ্ধাপরাধীদের নির্দেশে জাতির পিতাকে হত্যা করেছিলেন বাংলাদেশকে আরেকটি পাকিস্তান বানাতে, কিন্তু সেই স্বপ্ন পূরণ হয়নি। বেগম জিয়া জঙ্গি রাষ্ট্র বানাতে বাংলা ভাইদের মদদ দিয়েছিলেন তার সেই স্বপ্নও পূরণ হয়নি। গণতন্ত্রকে কবর দিতে বেগম জিয়ার স্বামী জাতির পিতাকে হত্যা করেছিল। একই লক্ষ্যে বেগম জিয়া ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার ঘটনা ঘটিয়েছিলেন। 

জনগণই সকল ষড়যন্ত্র রুখে দেবে উল্লেখ করে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জনগণের ক্ষমতায় বিশ্বাস করেন। জনগণই সকল ষড়যন্ত্র রুখে দেবে, সকল সন্ত্রাস, সহিংসতা এবং নৈরাজ্য প্রতিহত করবে। জনগণই যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করবে বাংলাদেশের মাটিতে। 

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তৃতা করেন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. হারুনুর রশিদ, ঢাকা-১৪ আসনের এমপি আসলামুল হক, কেন্দ্রীয় যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য আবুল বাশার, সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম জাহিদ, যুবলীগ ঢাকা মহানগর উত্তর সভাপতি আলহাজ মাইনুল হোসেন খান নিখিল, সাধারণ সম্পাদক মো. ইসমাইল হোসেন প্রমুখ।


রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার তথ্যকণিকা

পরিচিতি
ভাষণ
বার্তা

চেয়ারম্যান ডেস্ক

পরিচিতি
ভাষণ
বার্তা

সাধারণ সম্পাদক ডেস্ক

পরিচিতি
ভাষণ
বার্তা

যুবলীগ প্রকাশনা